English    ফটো গ্যালারি    ভিডিও গ্যালারি
শিরোনাম :
'আওয়ামী লীগ জিততে পারবে না বলেই নির্বাচন স্থগিত'       আগামী মার্চেই উন্নয়নশীল দেশের কাতারে বাংলাদেশ: প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা       ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় ছাত্র সংসদ (ডাকসু)’র নির্বাচনের নির্দেশ দিয়েছেন হাইকোট      কলম্বিয়ায় সেনা হেলিকপ্টার বিধ্বস্ত, নিহত ১০       ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের নির্বাচন ৩ মাসের জন্য স্থগিত      শাহজালাল থেকে নিষিদ্ধ ভায়াগ্রা স্প্রে আটক       আজ বাংলাদেশ উন্নয়ন ফোরামের উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী       
পীরগঞ্জ মডেল সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ে ভর্তি বানিজ্যের অভিযোগ
Published : Tuesday, 9 January, 2018 at 7:17 PM, Update: 09.01.2018 7:38:41 PM, Count : 1592
পীরগঞ্জ মডেল সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ে ভর্তি বানিজ্যের অভিযোগ পীরগঞ্জ (ঠাকুরগাঁও) প্রতিনিধি : পীরগঞ্জ মডেল সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ে ভর্তি অনিয়ম ও বানিজ্যের অভিযোগ উঠেছে। জানা যায় কয়েক বছর ধরে ২য়, ৩য় ও ৪র্থ শ্রেণীতে ভর্তি ইচ্ছুক শিক্ষার্থীদের কাছে আবেদন ফরম বিক্রি করেন স্কুলের প্রধান শিক্ষক ও সহকারী শিক্ষকরা। প্রতিবারের ন্যায় এ বছরও প্রতিটি ফরম ১০০ টাকা মূল্যে বিক্রি করেন। ৬ জানুয়ারী পরীক্ষা নেন স্কুল কৃর্তপক্ষ। পরীক্ষায় অংশগ্রহন করে প্রায় ২২৭ জন শিক্ষার্থী। যার মধ্যে ২য় শ্রেণীতে ১৫ জন, ৩য় শ্রেণীতে ৩০ জন এবং ৪র্থ শ্রেণীতে ৬০ জনকে উত্তীর্ণ করে ফল প্রকাশ করে। বাকি ১২২ জন শিক্ষার্থী ও তাদের পরিবারের মধ্যে হতাশা দেখা দেয়। অভিবাবকরা বলেন সরকার বিনামূল্যে বই দিচ্ছে কিন্তু আমরা তো ভর্তির সুযোগ পাবো না তাহলে বই কার জন্য? সরকার কেন এ পরীক্ষা নিচ্ছে? তাহলে আমরা এখন কি করবো? উত্তীর্ণ হওয়া শিক্ষার্থীদের কাছে ভর্তি ফরম বাবদ ৫০/১০০টাকা নেন স্কুল কৃর্তপক্ষ।প্রত্যেক শিক্ষার্থীর কাছে অতিরিক্ত আরো ৫০০ টাকা নেন কোন রশিদ ছাড়া। কেন টাকা নিচ্ছেন জানতে চাইলে উত্তর দেননা কোন শিক্ষক। প্রধান শিক্ষক মোছা: পারুল বেগম জানান আমরা ম্যানেজিং কমিটি এবং উপজেলা শিক্ষা অফিসারকে ম্যানেজ করে এবং জানিয়ে ফরম বিক্রি ও পরীক্ষা নিয়েছি। এ বিষয়ে উপজেলা শিক্ষা অফিসার মোঃ নজরুল ইসলামের সাথে যোগাযোগ করলে তিনি জানান এ ব্যাপারে আমার জানা নেই যা কিছু করেছে স্কুল কৃর্তপক্ষ করেছে। এসব টাকা কি করেন জিঙ্গাসা করলে প্রধান শিক্ষক বলেন টাকা সহকারী শিক্ষক মোজাম্মেলের কাছে জমা আছে। সহকারী শিক্ষক মোজাম্মেলকে জিঙ্গাসা করলে তিনি কথা এড়িয়ে যান। এ বিষয়ে উপজেলা নির্বাহী অফিসার এ ডব্লিউ এম রায়হান শাহ্ জানান বিষয়টি আমার জানা নেই। আমি সরেজমিনে গিয়ে বিষয়টি দেখে ব্যবস্থা গ্রহন করবো।









Join With Us
সর্বশেষ সংবাদ
সর্বাধিক পঠিত
সম্পাদক ও প্রকাশক: মোহাম্মদ নিজাম উদ্দিন জিটু
সম্পাদকীয় ও বাণিজ্যিক কার্যালয় : ৩৪৫/৩, বীর উত্তম সি.আর.দত্ত রোড (ফ্রি স্কুল স্ট্রিট, সোনারগাঁও রোড), হাতিরপুল, কলাবাগান, ঢাকা-১২০৫, বাংলাদেশ।
ফোনঃ +৮৮-০২-৯৬৬৬৬৮৫, ৯৬৭৫৮৮৫, ৯৬৬৪৮৮২-৩, ফ্যাক্সঃ +৮৮-০২-৯৬১১৬০৪, হটলাইন : +৮৮০-১৯২৬৬৬৭০০২-৩
ই-মেইল : pressgonokantho@yahoo.com, gonokanthomofossal@yahoo.com, editorgonokantho@yahoo.com, web : www.gonokantho.com.bd